শিরোনাম
bsl-2
ছাত্রলীগের শিক্ষার্থী সংলাপ ও নির্বাচনী কর্মিসভা শুরু
20181014_061340
শিবিরের নববর্ষের প্রকাশনার মোড়ক উম্মোচন।
kumarkhali pilot school
কুষ্টিয়ার কুমারখালীর শিক্ষা ব্যবস্থার একাল-সেকাল
mufthi a. hamid
কওমী মাদরাসা সনদের স্বীকৃতি বিল সংসদে পাস করায় প্রধানমন্ত্রীকে:: বৃহত্তর কুষ্টিয়া জেলা উলামা পরিষদ ও ১৫৫ কওমী মাদ্রাসা প্রধানদের অভিনন্দন
kushtia madrasha
কওমী শিক্ষাকে স্বীকৃতি দেয়ায় বৃহত্তর কুষ্টিয়া জেলা উলামা পরিষদের অভিনন্দন
komi degri
দাওরায়ে হাদিসের সনদকে মাস্টার্স ডিগ্রি সমমানের স্বীকৃতি মন্ত্রিসভায় অনুমোদন
suside
কুষ্টিয়ায় প্রেমের সম্পর্ক মেনে না নেওয়ায় প্রেমিক যুগলের আত্মহত্যা
image-48077-1533196001
কুষ্টিয়ায় শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ মিছিল
ZZ
কুষ্টিয়াতে দ্যা স্কালারস্ ফাউন্ডেশনের সনদ ও বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠিত
madrasa result
মাদ্রাসা বোর্ডের পাসের হার সবচেয়ে বেশি

গুরুত্বপূর্ণ খবর

    ছাত্রলীগের শিক্ষার্থী সংলাপ ও নির্বাচনী কর্মিসভা শুরু

    ঢাকা অফিস: আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে ‘শিক্ষার্থী সংলাপ ও নির্বাচনী কর্মিসভা’ কর্মসূচি হাতে নিয়েছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন ছাত্রলীগের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা নির্বাচন নিয়ে কী ভাবছেন এবং রাজনৈতিক দলগুলোর ইশতেহারে তাঁরা কোন বিষয়গুলো দেখতে চান, সেগুলো বের করে আনতে দুই সপ্তাহ ধরে এই কর্মসূচি চালিয়ে যাবে ছাত্রলীগ।

    গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হল ও বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হলে শিক্ষার্থী সংলাপের মধ্য দিয়ে কর্মসূচি শুরু হয়েছে। ছাত্রলীগের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি সনজিত চন্দ্র দাস ও সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে এসব bsl-2কথা বলা হয়।

    বিবৃতিতে বলা হয়, নির্বাচনে অংশ নেবেন এমন রাজনৈতিক দলের ইশতেহারে সাধারণ শিক্ষার্থীদের ভাবনার প্রতিফলন ঘটাতে এ কর্মসূচি গ্রহণ করেছে ছাত্রলীগ। বাংলাদেশের লড়াকু জনগণের সিদ্ধান্ত গ্রহণের নির্ধারকের ভূমিকায় অবতীর্ণ হওয়ার উদ্দেশ্যে সাধারণ শিক্ষার্থীদের ইচ্ছার প্রতিফলন হিসেবে এ আয়োজনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ২১ থেকে ২৮ নভেম্বর পর্যন্ত প্রতিদিন দুটি করে বিশ্ববিদ্যালয় হলে (বাকি ১৬ হল) এ কর্মসূচি পালন করবে ছাত্রলীগ। এরপর ২৯ নভেম্বর থেকে ৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের সব অনুষদ ও ইনস্টিটিউটে শিক্ষার্থী সংলাপ ও কর্মিসভা করবে সংগঠনটি।

    সাদ্দাম হোসেন প্রথম আলোকে বলেন, কর্মসূচির শিক্ষার্থী সংলাপ অংশটা বেশি গুরুত্বপূর্ণ। শিক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয় ও আসন্ন নির্বাচন নিয়ে কী ভাবছেন এবং আসন্ন নির্বাচনে রাজনৈতিক দলগুলোর ইশতেহারে তাঁরা কোনো বিষয়গুলো দেখতে চান, সেগুলো বের করে আনার জন্যই এই কর্মসূচি৷

    240 total views

    শিবিরের নববর্ষের প্রকাশনার মোড়ক উম্মোচন।

    শিবিরের নববর্ষের প্রকাশনার মোড়ক উন্মোচন।

    ইসলামী ছাত্রশিবিরের কেন্দ্রীয় সভাপতি ইয়াছিন আরাফাত বলেছেন, দেশের তরুণ সমাজকে বিপদগামী করতে অপসংস্কৃতি বিরাট ভূমিকা রাখছে। দেশে অপসংস্কৃতির প্রসারে অশালিন প্রকাশনার বিরাট ভূমিকা রয়েছে। এ অশুভ কালো ছায়া দিন দিন আমাদের নিজস্ব সংস্কৃতিকে গ্রাস করে নিচ্ছে। সুতরাং অপসংস্কৃতির সয়লাব রুখতে হলে মননশীল প্রকাশনার প্রসার ঘটাতে হবে।

    তিনি শনিবার রাজধানীর একটি মিলনায়তনে ছাত্রশিবির প্রকাশিত নববর্ষ ২০১৯ এর প্রকাশনার মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। কেন্দ্রীয় প্রকাশনা সম্পাদক রাজিফুল হাসান বাপ্পীর পরিচালনায় বিশেষ অতিথি ছিলেন সেক্রেটারি জেনারেল মোবারক হোসাইন। এ ছাড়াও কেন্দ্রীয় ও মহানগরী নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

    শিবির সভাপতি বলেন, অশালীন সংস্কৃতির প্রভাবে দেশীয় ও ইসলামী মূল্যবোধের সংস্কৃতি বিলিন হতে চলেছে। ফল স্বরূপ ২ বছরের শিশু থেকে ৭০ বছরের বৃদ্ধা পর্যন্ত ধর্ষণের শিকার হচ্ছে। যে ছেলেটির হওয়ার কথা শিক্ষক, চিকিৎসক, প্রকৌশলী বা প্রশাসক সে আজ হয়ে যাচ্ছে চোরাচালানকারী, মাদক ব্যবসায়ী কিংবা সন্ত্রাসী। যার দেশকে অনেক দূর এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার কথা ছিল সে আজ অন্যায় করে ব্যাহত করছে দেশের অগ্রযাত্রাকে। এসব কিছুর মূলে রয়েছে মূল্যবোধের অবক্ষয়। আর অবক্ষয়ের জন্য অশালীন ও নোংরা সংস্কৃতি অনেকাংশেই দায়ী। এ চিত্র একটি মুসলিমপ্রধান দেশের জন্য চরম লজ্জার বিষয়। এভাবে চলতে থাকলে অল্প সময়ের ব্যবধানে জাতি তার নিজস্ব সংস্কৃতি হারিয়ে ফেলবে। আগামী প্রজন্ম গড়ে উঠবে বিজাতীয় সংস্কৃতির মধ্যে। যার পরিণতি হবে ভয়াবহ।

    তিনি বলেন, ছাত্রশিবির একটি আদর্শিক ও গতিশীল সংগঠন; কিন্তু বরাবরই ছাত্রশিবির সরকারের রোষানলের শিকার। কোন কারণ ছাড়াই আমাদের অফিসগুলো বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। নির্বিচারে সাহিত্য ও প্রকাশনা সামগ্রী বেআইনি ভাবে জব্দ করা হয়েছে। কিন্তু সরকারের শত নির্যাতন ও প্রতিকূলতার মাঝেও ছাত্রশিবির তার নিয়মতান্ত্রিক সৃজনশীল কর্মকাণ্ড অব্যাহত রেখেছে। যার প্রমাণ যথাসময়ের অনেক আগেই আজকের এই নববর্ষের প্রকাশনা সামগ্রীর মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠান। প্রতি বছরের মত এবারও আমরা যথাসময়ের অনেক আগেই ছাত্রসমাজ ও দেশবাসীর চাহিদার আলোকে প্রকাশনা সামগ্রী তৈরি করতে সক্ষম হয়েছি। ছাত্রশিবির তার সাধ্য অনুযায়ী তথ্য, মননশীলতা, দেশী ও ইসলামী মূলবোধকে তুলে ধরে প্রতিবছরই আকর্ষণীয় প্রকাশনা জাতিকে উপহার দেয়ার চেষ্টা করে যাচ্ছে। এসব প্রকাশনা সামগ্রীতে অনেক বিষয় তুলে আনা হয়, যা ছাত্রসমাজের মেধার বিকাশ ও মনন তৈরিতে কাজ করে। একই সাথে ছাত্রসমাজকে আশান্বিত ও বিজাতীয় অশ্লীল সংস্কৃতির প্রভাব থেকে রক্ষা করবে বলে আমাদের বিশ্বাস। ২০১৯ সালের এই প্রকাশনা একদিকে যেমন দেশি ও ইসলামী মূল্যবোধের সংস্কৃতির বিকাশ ঘটাতে সহায়তা করবে তেমনি এর তথ্য ভান্ডার ছাত্রসমাজের জ্ঞানের পরিধিকে সমৃদ্ধ করবে। 
    উল্লেখ্য, প্রতিবছরই নতুন বছরে জন্য আকর্ষণীয় প্রকাশনার আয়োজন করে ছাত্রশিবির। প্রকাশনার মধ্যে রয়েছে এক পাতা ও তিন পাতার ক্যালেন্ডার, টেবিল ক্যালেন্ডার, ছোট ও বড় ডাইরি, ইসলাম ও সচেতনতামূলক বাণী সম্বলিত ষ্টিকার ইত্যাদি।

    336 total views

    কুষ্টিয়ার কুমারখালীর শিক্ষা ব্যবস্থার একাল-সেকাল

    kumarkhali pilot schoolমাহমুদ শরীফ
    কুমারখালীর শিক্ষা বিস্তারের ক্ষেত্রে যাদের অবদান স্মরনীয় তাদের মধ্যে অন্যতম হলো- ১৯৪৭ সালে দেশ ভাগের পূর্বে কুমারখালী উপজেলায় শিক্ষানুরাগী মথুরানাথ কুন্ডু (১৮১৮-১৮৮৫) কুমারখালী শহরের গড়াই নদীর তীরবর্তী নীলকুঠিবাড়ীতে ১৮৫৬ সালে তার নিজ নামে এম এন (মথুরানাথ) স্কুল প্রতিষ্ঠা করেন। মূলতঃ এটি ছিল একটি ইংরেজী বিদ্যালয়। তিনি এই স্কুল প্রতিষ্ঠালগ্নে লর্ড সাহেবের আগমন উপলক্ষে গড়াই নদীতে ব্যারিকেট দেন। … সম্পূর্ণ খবর …

    2,120 total views

    কওমী মাদরাসা সনদের স্বীকৃতি বিল সংসদে পাস করায় প্রধানমন্ত্রীকে:: বৃহত্তর কুষ্টিয়া জেলা উলামা পরিষদ ও ১৫৫ কওমী মাদ্রাসা প্রধানদের অভিনন্দন

    mufthi a. hamidস্টাফ রিপোর্টার : কওমী মাদরাসা সনদের স্বীকৃতি বিল সংসদে পাস করায় প্রধানমন্ত্রীকে অভিনন্দন জানিয়েছেন বৃহত্তর কুষ্টিয়া জেলা উলামা পরিষদ। একই সাথে কুষ্টিয়া জেলা ইমাম পরিষদ এবং কুষ্টিয়া জেলার ১৫৫টি কওমী মাদ্রাসার শিক্ষক ও ছাত্ররা অভিনন্দন জানান। … সম্পূর্ণ খবর …

    1,216 total views

    কওমী শিক্ষাকে স্বীকৃতি দেয়ায় বৃহত্তর কুষ্টিয়া জেলা উলামা পরিষদের অভিনন্দন

    kushtia madrashaস্টাফ রিপোর্টার : কওমী শিক্ষা ব্যবস্থার সর্বোচ্চ স্তর দাওরায়ে হাদিসকে মার্ষ্টাস সমমর্যাদা দিয়ে মন্ত্রী সভায় আইন অনুমদোন করায় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা , মন্ত্রীসভা , সচিবসহ সকলকে বৃহত্তর কুষ্টিয়া জেলা উলামা পরিষদ এবং বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশ কুষ্টিয়া জেলা শাখার পক্ষ থেকে অভিনন্দন … সম্পূর্ণ খবর …

    71 total views, 1 views today

    দাওরায়ে হাদিসের সনদকে মাস্টার্স ডিগ্রি সমমানের স্বীকৃতি মন্ত্রিসভায় অনুমোদন

    komi degriনিজস্ব প্রতিবেদক : ‘কওমি মাদ্রাসার দাওরায়ে হাদিসের সনদকে মাস্টার্স ডিগ্রি সমমানের স্বীকৃতি দিয়ে আইনের অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা’ বলে জানিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব। তিনি জানান, কওমি মাদরাসাসমূহের দাওরায়ে হাদিস (তাকমীল)-এর সনদকে মাস্টার্স ডিগ্রি (ইসলামিক স্টাডিজ ও আরবি) সমমনা প্রদান আইন, ২০১৮ এর খসড়ার নীতিগত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রীসভা। … সম্পূর্ণ খবর …

    792 total views

    কুষ্টিয়ায় প্রেমের সম্পর্ক মেনে না নেওয়ায় প্রেমিক যুগলের আত্মহত্যা

    স্টাফ রিপোর্টার : পরিবার থেকে প্রেমের সম্পর্ক মেনে না নেওয়ায় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) ফিন্যান্স অ্যান্ড ব্যাংকিং বিভাগের দুই শিক্ষার্থী আত্মহত্যা করেছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার দুই susideঘণ্টার ব্যবধানে তারা আত্মহত্যা করেন। নিহত দুই শিক্ষার্থী হলেন, রোকনুজ্জামান রোকন ও মুমতাহিনা। তারা দুজনই ফিন্যান্স অ্যান্ড ব্যাংকিং বিভাগের ২০১১-১২ স্নাতক শিক্ষা বর্ষের শিক্ষার্থী ছিলেন। … সম্পূর্ণ খবর …

    632 total views

    কুষ্টিয়ায় শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ মিছিল

    image-48077-1533196001স্টাফ রিপোর্টার : ‘আমরা বাঁচতে চাই এবং বিচার চাই’ শ্লোগানে নিরাপদ সড়কের দাবিতে কুষ্টিয়ায় সাধারণ শিক্ষার্থীরা মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে।
    আন্দোলন কর্মসূচীর অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে কুষ্টিয়া শহরের মজমপুর এলাকায় মানববন্ধন শুরু করে শিক্ষার্থীরা। … সম্পূর্ণ খবর …

    536 total views

    কুষ্টিয়াতে দ্যা স্কালারস্ ফাউন্ডেশনের সনদ ও বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠিত

    সোহাগ মাহমুদ খানঃ নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে কুষ্টিয়াতে বেসরকারি সর্ব বৃহৎ বৃত্তি প্রকল্প প্রতিষ্ঠান দ্যা স্কালারস্ ফাউন্ডেশনের সনদ ও বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠান সম্পূর্ন হয়েছে।
    শুক্রবার সকাল ৯ঘটিকার সময় কুষ্টিয়ার সুনামধন্য বিদ্যাপিঠ কুষ্টিয়া হাইস্কুলের অডিটরিয়ামে অনুষ্ঠিত হয়। ফাউন্ডেশনের সহকারী পরিচালক শিশির আহমেদের সভাপতিত্বে ফাউন্ডেশনের সদস্য মনির আহমেদ এর পরিচালনায় tsf 1অনুষ্ঠিত হয়।
    বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন, বিশিষ্ট সমাজ সেবক, শিক্ষানুরাগী অধ্যাপক সুজা উদ্দিন জোর্য়াদ্দার। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কুষ্টিয়া জেলা জর্জকোর্টের সিনিয়ার আইনজিবী ও সাপ্তাহিক দেশব্রতী পত্রিকার সম্পাদক এ্যাডভোকেট লিয়াকত আলী, কুষ্টিয়া হাইস্কুলের সহকারী প্রধান শিক্ষিকা মোছাঃ শাবানা ইয়াছমিন ও ফাউন্ডেশনের সহকারী পরিচালক মোঃ আtsf2
    উল্লেখ্য যে গত ২৫ শে ডিসেম্বর কুষ্টিয়া হাইস্কুল ও চাঁদ সুলতানা বালিকা বিদ্যালয়ে প্রায় ১৫শতাধিক মেধাবী ছাত্রছাত্রীদের অংশগ্রহনে অনুষ্ঠিত হয় এবং ১লা এপ্রিল এর ফল প্রকাশ করা হয়। কুষ্টিয়ার বিভিন্ন স্কুল ও মাদরাসার পঞ্চম থেকে নবম শ্রেনীর মেধাবী ছাত্রছাত্রীদের মধ্যে ৩টি ক্যাটাগরিতে মোট ১শত ৪০ জন কৃতি শিক্ষাথীকে সনদ, ক্রেষ্ট ও নগদ অর্থ প্রদান করা হয়।
    এ সময় অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, দ্যা স্কলারস্ ফাউন্ডেশন দীর্ঘ বিশ বছর এই বৃত্তি প্রকল্প চালিয়ে আসছে এবং প্রতিষ্ঠা লগ্নথেকে চেয়ারম্যান হিসাবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন কুষ্টিয়ার দিগন্তের সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি অধ্যাপক আবু জাফর। যার ফলে জেলার শিক্ষার হার সহ শিক্ষার্থীরা শিক্ষার দিকে অগ্রসর হতে বেশ  ভ’মিকা রাখছে। এসময় বৃত্তিপ্রাপ্ত  শিক্ষার্থীদের মধ্য থেকে ফাহাদ হুসাইন ও শাওজিয়া নওসীন বক্তব্য রাখেন।
    অনুষ্ঠান শেষে শিক্ষার্থীদের মাঝে ক্রেষ্ট, সনদ ও নগদ অর্থ তুলে দেন আমন্ত্রিত অতিথি বৃন্দ।

    7,792 total views

    মাদ্রাসা বোর্ডের পাসের হার সবচেয়ে বেশি

    madrasa resultনিজস্ব প্রতিবেদক : উচ্চ মাধ্যমিক (এইচএসসি) ও সমমান পরীক্ষায় ১০ বিভাগের মধ্যে এবার মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের পাসের হার সবচেয়ে বেশি। ১০ শিক্ষা বোর্ডে পাসের গড় হার ৬৬ দশমিক ৬৪ শতাংশ হলেও মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৭৮ দশমিক ৬৭ শতাংশ। … সম্পূর্ণ খবর …

    608 total views

121,466 total views, 247 views today

প্রধান খবর

  • আজ ৯ ডিসেম্বর কুমারখালী হানাদার মুক্ত দিবস

    কুমারখালি প্রতিনিধি : ১৯৭১ সালের ৯ ডিসেম্বর এই দিনে পাকিস্তানী হানাদার বাহিনীকে পরাজিত করে কুমারখালীর মুক্তিযোদ্ধারা বিজয় ছিনিয়ে এনেছিলেন এবং কুমারখালীকে হানাদার মুক্ত করেছিলেন।

    ১৯৭১ সালের ৭ ডিসেম্বর সকালে মুক্তিযোদ্ধারা পরিকল্পিত ভাবে কুমারখালীতে প্রবেশ করে শহরের প্রাণকেন্দ্রে অবস্থিত কুন্ডুপাড়ার রাজাকারদের ক্যাম্প আক্রমণ করেন। রাজাকার কমান্ডার ফিরোজ বাহিনীর সঙ্গে মুক্তিযোদ্ধাদের তুমুল যুদ্ধ শুরু হয়।

    এ খবর কুষ্টিয়া জেলা শহরে অবস্থানরত পাক-সেনাদের কাছে পৌঁছালে তারা দ্রুত কুমারখালীতে এসে গুলিবর্ষণ করতে থাকলে পুরো শহর আতঙ্ক গ্রস্থ হয়ে পড়ে। এবং মুক্তিযোদ্ধারা তাদের অkkkkপর্যাপ্ত অস্ত্র ও সংখ্যায় কম থাকায় শহর ত্যাগ করেন।

    এ সময় পাকিস্তানি বাহিনী ও রাজাকাররা কুমারখালী শহরজুড়ে হত্যাযজ্ঞ, অগ্নিসংযোগ ও লুটতরাজ শুরু করে।৭ ডিসেম্বরের যুদ্ধে পাকিস্তানী বাহিনীর হাতে আওয়ামী লীগ নেতা মুক্তিযোদ্ধা তোসাদ্দেক হোসেন ননী মিয়া শহীদ হন।
    পাকিস্তানী হানাদারদের হত্যাযজ্ঞের শিকার হয়েছিলেন মুক্তিকামী বীর বাঙালী সামসুজ্জামান স্বপন, সাইফুদ্দিন বিশ্বাস, আব্দুল আজিজ মোল্লা, শাহাদত আলী, কাঞ্চন কুন্ডু, আবু বক্কার সিদ্দিক, আহমেদ আলী বিশ্বাস, আব্দুল গনি খাঁ, সামসুদ্দিন খাঁ, আব্দুল মজিদ ও আশুতোষ বিশ্বাস মঙ্গল।

    পরবর্তীতে মুক্তিযোদ্ধারা সুসংগঠিত হয়ে ৯ ডিসেম্বর পাকবাহিনীর ক্যাম্পে (বর্তমানে কুমারখালী উপজেলা পরিষদ) আক্রমণ করেন।

    দীর্ঘসময় যুদ্ধের পর পাকিস্তানি বাহিনী মুক্তিযোদ্ধাদের আক্রমণের কাছে টিকতে না পেরে দ্রুত ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায় । ৯ ডিসেম্বরের যুদ্ধে মুক্তিযোদ্ধাদের হাতে রাজাকার কমান্ডার খুশি মারা যায়।

    এইদিন কুমারখালী শহর হানাদার মুক্ত হওয়ার পর সর্বস্তরের জনতা এবং মুক্তিযোদ্ধারা রাস্তায় নেমে আনন্দ মিছিল বের করেন।

    6,495 total views, 205 views today

আজকের খবর

জাতীয়

কুষ্টিয়ার খবর

সম্পাদক ও প্রকাশক : খালিদ হাসান সিপাই.

নির্বাহী সম্পাদক : মাজহারুল হক মমিন।

বড় জামে মসজিদ মার্কেট, এন এস রোড কুষ্টিয়া।

০১৭১৬২৬৮৮৫৮, E-mail: Kushtiardiganta@gmail.com .