বুধবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২২, ০৫:২২ পূর্বাহ্ন

স্বামী ও শাশুড়ি নির্যাতনে মারা গেলেন মিম!

নিজস্ব প্রতিবেদক / ২৪০ বার নিউজটি পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ৩:৪০ অপরাহ্ন

আজ  ভোর পাঁচটায় তাসনীম আলম মিম ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন। মিম গত ১২ দিন আইসিওতে লাইফ সাপোর্টে ভর্তি ছিল। উল্লেখ্য তাসনীম আলম মীমকে গত ২-০৯-২০২০ তারিখে তার পরিবার কুষ্টিয়া সদর হাসপাতালে ভর্তি অবস্থায় পাই। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে তারা তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। এ ব্যাপারে তার বাবা মহিবুল আলাম জানায়, দীর্ঘদিন ধরে তার জামাই এজাজ আহমেদ বাপ্পি। পিতা: মৃত জিন্না মোল্লা ও শাশুড়ি মোছাঃ কোহিনুর বেগম ও দুলাভাই রাজু আলী যৌতুকের জন্য পরিকল্পিতভাবে নির্যাতন করে আসছে। এজন্য মহিবুল আলম মোট ১৫ লক্ষ টাকার টাকা গহনা ও আসবাবপত্র যৌতুক ও প্রদান করে।মহিবুল আলম আরো বলে, তার মেয়ের শরীলে অসংখ্য আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে।তার দুই দাঁত ও ঘাড় ভেঙে গেছে। এজন্য তিনি কুষ্টিয়া জজ কোর্টে আজ ১৫-০৯-২০২০ দুপুরে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। এ ব্যাপারে দৌলতপুর থানার ওসি জহিরুল ইসলাম  বলেন, তিনি এ বিষয়ে অবগত হয়েছেন এবং বলেন এ মামলার এজাহার থানায় এসে পৌঁছালে দোষীদের বিরুদ্ধে তদন্ত সাপেক্ষ যথাযথ কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। উল্লেখ্য তাসনীম আলম মিম কুষ্টিয়া জেলার মিরপুর উপজেলার ফুলবাড়ী ইউনিয়নের কচুয়াদহ গ্রামের মহিবুল আলম এর মেয়ে। মিম ২০১৭ সালে কুষ্টিয়া সরকারি মহিলা কলেজ থেকে দর্শন বিভাগে এম এ পাস করেন এবং ২০১৬ সালে দৌলতপুর উপজেলার তারাগুনিয়া এলাকার মৃত জিন্না মোল্লার ছেলে এজাজ আহমেদ বাপ্পির সঙ্গে পারিবারিকভাবে বিয়ে সম্পন্ন হয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর ....

এক ক্লিকে বিভাগের খবর